Home » আন্তর্জাতিক » এ তো ছক্কা মারার টেস্ট আগে দেকিনি

এ তো ছক্কা মারার টেস্ট আগে দেকিনি

 

নিউটার্ন.কম
বিশাখাপত্তম টেস্টে এক ম্যাচে দেখা গেল সর্বোচ্চ ছক্কা মারার নজির। ইনিংসে সর্বোচ্চ ছক্কার রেকর্ডও দেখা গেছে এ টেস্টে
ছক্কা মারার টেস্ট!

বিশাখাপত্তম টেস্টকে এ নামকরণ করলে অত্যুক্তি হবে না মোটেও। ডাউন দ্য উইকেট এসে রোহিত শর্মার ছক্কা হাঁকানো এ টেস্টের ‘প্রচ্ছদ’। বলতে পারেন, এসব টেস্টের মেজাজের সঙ্গে যায় না। কিন্তু রান করা যদি হয় ব্যাটিংয়ের মূল নিয়ামক, তাহলে কম পরিশ্রমে বেশি লাভ মানে ছক্কা মারাই তো সেরা টেকনিক! বিশাখাপত্তমে দুই দলের যৌথ প্রযোজনায় কিন্তু ছক্কা মারার তেমন এক টেস্টই দেখা গেল। ব্যক্তিগত, দলীয় এবং ম্যাচে সর্বোচ্চসংখ্যক ছক্কার রেকর্ড হয়েছে এ ম্যাচে।

রোহিত শর্মা, মায়াঙ্ক আগারওয়াল, ডিন এলগার, জাদেজারা ছক্কার প্লেট সাজিয়েই রেখেছিলেন। রেকর্ডটি হতে দরকার ছিল আর মাত্র এক ছক্কার। প্রোটিয়াদের দ্বিতীয় ইনিংসের সেরা ব্যাটসম্যানটি মেরেছেন সে ছক্কাটি। দশে নেমে ৫৬ রান করা পিয়েত আজ নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে ৩৫তম ওভারে রবীন্দ্র জাদেজাকে বাতাসে ভাসিয়ে সীমানার বাইরে পূর্ণতা এনে দেন রেকর্ডে। বিশাখাপত্তম টেস্টে এটি ছিল ম্যাচের শেষ ছক্কা। তাতে গোটা ম্যাচে ছক্কাসংখ্যা দাঁড়ায় ৩৬। টেস্ট ইতিহাসে এক ম্যাচে এটি সর্বোচ্চ ছক্কার রেকর্ড।

আগের রেকর্ডটি ছিল নিউজিল্যান্ড-পাকিস্তানের। ২০১৪ সালে শারজা টেস্টে দুই দল মিলে হাঁকিয়েছিল ৩৫টি ছক্কা। টেস্টে এক ম্যাচে দুই দল মিলে সর্বোচ্চ ছক্কা মারার তালিকায় বেশ ওপরের দিকেই আছে বাংলাদেশের নাম। বলা যায় শীর্ষ তিনে। ২০১৩ সালে চট্টগ্রামে বাংলাদেশ-নিউজিল্যান্ড টেস্টেও দেখা গেছে ২৭ ছক্কা। সাত বছর আগে ২০০৬ সালে ফয়সালাবাদে ভারত-পাকিস্তান টেস্টেও দেখা গিয়েছিল ২৭ ছক্কা। এক ম্যাচে সর্বোচ্চ ছক্কার রেকর্ডে এ দুটি টেস্ট তৃতীয়।

বিশাখাপত্তমে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ১৩ ছক্কা মেরেছে ভারত। প্রোটিয়ারা তাদের প্রথম ইনিংসে মেরেছে ৭ ছক্কা। এরপর ভারতের দ্বিতীয় ইনিংসে দেখা গেছে ১৪ ছক্কা। রেকর্ড হতে দরকার ছিল ৩ ছক্কার। গুনে গুনে তিন ছক্কাই এসেছে প্রোটিয়াদের দ্বিতীয় ইনিংসে। এক টেস্টে এক দলের সর্বোচ্চ ছক্কার রেকর্ডও এখন ভারতের (২৭)।

এক ম্যাচে সর্বোচ্চ ছক্কার এ রেকর্ডে রোহিতের অবদানই সবচেয়ে বেশি। টেস্টে প্রথমবারের মতো ওপেন করতে নেমেই রেকর্ড বই ওলট-পালট করেছেন এ ব্যাটসম্যান। ইতিহাসের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে দুই ইনিংসেই কম পক্ষে ছয়টি করে ছক্কা মেরেছেন রোহিত। ভেঙেছেন ভারতের হয়ে এক টেস্টে নভোজিৎ সিধুর গড়া (৮) সর্বোচ্চ ছক্কার রেকর্ডও। ভারতের দুই ইনিংস মিলিয়ে মোট ১৩টি ছক্কা মেরেছেন রোহিত। এতে ভেঙেছে ওয়াসিম আকরামের গড়া এক টেস্টে সর্বোচ্চ ছক্কা মারার বিশ্ব রেকর্ড (১২)। বিশাখাপত্তমে মায়াঙ্ককে সঙ্গে নিয়ে আরও একটি রেকর্ড গড়েছেন রোহিত। টেস্টে কোনো ওপেনিং জুটির কাছ থেকে সর্বোচ্চ ১২ ছক্কা মারার রেকর্ড—যা দেখা গেছে ভারতের প্রথম ইনিংসে। ২০০৪ সালে পার্থে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে অস্ট্রেলিয়ার দুই ওপেনার ম্যাথু হেইডেন-জাস্টিন ল্যাঙ্গার জুটি ১১ ছক্কা হাঁকিয়েছিলেন।

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ভারতের হয়ে তিন সংস্করণে ইনিংসে সর্বোচ্চ ছক্কার রেকর্ডও এখন রোহিতের। টি-টোয়েন্টিতে ১০, ওয়ানডেতে ১৬ আর টেস্টে ১৩ ছক্কা হাঁকিয়েছেন তিনি। আর ২০১৬ সাল থেকে হিসেব করলে, সব সংস্করণ মিলিয়ে রোহিতের ছক্কাই বেশি। ১৪৭ ইনিংসে ২৩৯ ছক্কা মেরেছেন রোহিত। ৯৭ ইনিংসে ১২৬ ছক্কা নিয়ে দুইয়ে ইংল্যান্ডের ওয়ানডে অধিনায়ক এউইন মরগান। দুজনের মধ্যে পার্থক্যটা প্রায় অর্ধেকের কাছাকাছি। কী টি-টোয়েন্টি, ওয়ানডে কিংবা টেস্ট—রোহিতকে তো আর সাধ করে ‘হিটম্যান’ ডাকা হয় না!

নিজস্ব প্রতিবেদক

0 Shares