Home » আন্তর্জাতিক » বাগদাদে জোড়া আত্মঘাতী বোমা হামলায় নিহত ৩২

বাগদাদে জোড়া আত্মঘাতী বোমা হামলায় নিহত ৩২

 

 

 

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :

ইরাকের রাজধানী বাগদাদের একটি ভিড়ঠাসা বাণিজ্যিক এলাকায় জোড়া আত্মঘাতী বোমা হামলায় অন্তত ৩২ জন নিহত ও ১১০ জন আহত হয়েছে বলে জানিয়েছেন দেশটির কর্মকর্তারা।

বাগদাদের কেন্দ্রস্থলে তায়ারান চত্বরে বৃহস্পতিবার এই হামলার ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

সামরিক বাহিনীর এক মুখপাত্র জানান, বাব আল-শারকির একটি কাপড়ের বাজারে দুই বোমারু নিজেদের উড়িয়ে দেন।

আরও পড়ুন :

প্রত্যেককে ডিজিটাল দক্ষতা অর্জন করতে হবে : মোস্তাফা জব্বার

অতিক্ষুদ্র, ক্ষুদ্র- মাঝারি উদ্যোক্তাদের পণ্যে বৈচিত্র্য আনতে হবে : শিল্পমন্ত্রী

২০১৮ সালের জানুয়ারির পর এটিই বাগদাদে হওয়া সবচেয়ে প্রাণঘাতী আত্মঘাতী হামলা; তিন বছর আগে একই চত্বরে হওয়া ওই হামলায় ৩৫ জনের মৃত্যু হয়েছিল বলে জানিয়েছে বিবিসি।

কোনো গোষ্ঠী এখন পর্যন্ত বৃহস্পতিবারের হামলার দায় স্বীকার না করলেও জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটকে (আইএস) আগে এই ধরনের হামলা চালাতে দেখা গেছে।

“এই হামলার পেছনে সন্ত্রাসী গোষ্ঠী দায়েশ থাকতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে,” আইএসের আরবি নাম উল্লেখ করে বলেছেন ইরাকের বেসামরিক প্রতিরক্ষা বিভাগের প্রধান মেজর জেনারেল কাদিম সালমান।

২০১৭ সালের শেষদিকে ইরাকের সরকার আইএসের বিরুদ্ধে যুদ্ধে জয়লাভের ঘোষণা দেয়; যদিও জঙ্গিগোষ্ঠীটির ‘স্লিপার সেল’ এখনও ইরাকের বিভিন্ন এলাকায় সক্রিয়।

ইরাকি সামরিক বাহিনীর মুখপাত্র ইয়েহিয়া রাসুল বলেছেন,দুই আত্মঘাতী বোমারু বৃহস্পতিবারের হামলাটি চালিয়েছে। নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা তাদের অনুসরণ করছিল; এক পর্যায়ে ওই দুইজন বাব শারকি এলাকার ভেতর আত্মঘাতী হামলা চালায়।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ফুটেজে জোড়া বোমা হামলার পর মাটিতে একাধিক মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখা গেছে।

বিস্ফোরণের পরপরই ঘটনাস্থলের দিকে একের পর এক অ্যাম্বুলেন্স ছুটে যায় ও আহতদের বাগদাদের বিভিন্ন হাসপাতালে নিয়ে যায়।

জোড়া এ আত্মঘাতী হামলার পরপরই বিভিন্ন স্থানে সামরিক বাহিনীর সদস্যদের মোতায়েন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ইরাকি পুলিশের কর্মকর্তারা। সম্ভাব্য আরও হামলার আশঙ্কায় রাজধানীর প্রধান প্রধান সড়কে ব্যারিকেড় বসানো হয়েছে।

0 Shares