Home » জাতীয় » সাত বছরে সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘সংস্কৃতায়ন’

সাত বছরে সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘সংস্কৃতায়ন’

 

রাবি প্রতিনিধি
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘সংস্কৃতায়ন’ প্রতিষ্ঠার ৬ষ্ঠ বার্ষিকী উদযাপন করতে যাচ্ছে। এ উপলক্ষে আগামী ১৭ সেপ্টেম্বর বিশ্ববিদ্যালয়ের কাজী নজরুল ইসলাম মিলনায়তনে সংগঠনটি উদযাপন অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। রবিবার এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান সংগঠনটির সচিব সুখন সরকার।

দুই পর্বের উদযাপন অনুষ্ঠানের প্রথম পর্বে সকাল দশটায় দিনব্যাপী অনুষ্ঠানসূচির শুভ সূচনা করবেন নাট্যজন মলয় ভৌমিক ও এস.এম আবু বকর। এসময় নৃত্যের মাধ্যমে দেশবরেণ্য শিল্পী ও গণ্যমান্য ব্যক্তিদের অভিবাদন জানানো হবে।

উদ্বোধনী শেষে ‘নন্দনায়ন’ কর্তৃক প্রদর্শিত শিল্পকর্ম প্রদর্শনী সকলের জন্য উন্মুক্ত করা হবে। সেখানে বিভিন্ন শিল্পী ও শিল্প গবেষকদের শিল্পকর্ম স্থান পাবে। প্রদর্শনী উন্মুক্তকরণের পর প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর মঙ্গলযাত্রা ক্যাম্পাসের বিভিন্ন্ সড়ক প্রদক্ষিণ করবে ।

সংস্কৃতায়নের আহ্বায়ক ড. আমির জামানের শুভেচ্ছা কথনের মধ্য দিয়ে শুরু হবে আলোচনা পর্ব। ‘বাঙালি সংস্কৃতির প্রকৃতি ও স্বরূপ’ শিরোনামে সূচনালোচনা করবেন নাট্যজন এস.এম আবু বকর।

এরপর শুরু হবে পাঠ পরিবেশনা। দ্বিতীয় পর্বের পরিবেশনা উপস্থাপনার তাত্ত্বিক দিক নিয়ে অনুষ্ঠিত হবে এই পাঠ পরিবেশনা। নন্দনায়নের পাঠ পরিবেশন করবেন ড. মো. আরিফুল ইসলাম। ড. দীনবন্ধু পাল ও ড. কৃষ্ণপদ মণ্ডল উচ্চাঙ্গ সঙ্গীতের পাঠ পরিবেশনা করবেন। ধ্রুপদী নৃত্য বিষয়ক পাঠ পরিবেশনা করবেন ল্যাডলী মোহন মৈত্র ও আলো রাণী মৈত্র। সুখন সরকার মূকাভিনয়ের উপর পাঠ পরিবেশনা করবেন।

নাট্যজন মলয় ভৌমিকের শিল্পালোচনার মধ্য দিয়ে বেল্ ১ টায় শেষ হবে অনুষ্ঠানের প্রথম পর্ব।

ঐদিন বিকাল সাড়ে ৫ টায় ‘সঙ্গীতায়ন’র উচ্চাঙ্গ সঙ্গীত পরিবেশনার মধ্য দিয়ে শুরু হবে দ্বিতীয় পর্ব। এরপর ‘নৃত্যায়ন’র পরিবেশনায় ধ্রুপদী নৃত্য ও ‘মূকাভিনয়ম’র পরিবেশনায় ‘বাঙালির অভিযাত্রা’ নামক মূকাভিনয় পরিবেশিত হবে।

সবশেষে কল্যাণী সমাপনীর মধ্য দিয়ে সংস্কৃতায়নের ষষ্ঠ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপনের পর্দা নামবে ।

উল্লেখ্য, ‘সুস্থ সংস্কৃতির সুষ্ঠু চর্চায় গড়ি আগামীর বিশ^’ স্লোগানে ২০১৩ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় এই সাংস্কৃতিক প্লাটফর্ম। সংগঠনটি প্রতিবছর সংস্কৃতি বিষয়ক আন্তর্জাতিক জার্নাল প্রকাশ করে আসছে।

9 Shares